বঙ্গবন্ধু হত্যা: ষড়যন্ত্রকারী খুঁজতে কমিশন হচ্ছে

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যার ষড়যন্ত্রে জড়িতদের খুঁজে বের করতে একটি তদন্ত কমিশন করা হচ্ছে। সরকার এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে।

শিগগিরই কার্যক্রম শুরু করা হবে।
১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা করা হয়। এই হত্যাকাণ্ডে যারা সরাসরি অংশ নিয়েছিল দেরিতে হলেও তাদের বিচার হয়েছে। তবে ওই হত্যাকাণ্ডের পেছনের ষড়যন্ত্রকারী বা কুশীলবদের বিচারের দাবি দীর্ঘদিনের। বিষয়টি মাথায় রেখেই সরকার তদন্ত কমিশন গঠনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এ বিষয়ে আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক বলেন, বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের নেপথ্যের ষড়যন্ত্র উদঘাটনে একটি তদন্ত কমিশন গঠন করার সিদ্ধান্ত নেওয় হয়েছে। করোনা পরিস্থিতি একটু স্বাভাবিক হলে আমরা কার্যক্রম শুরু করব।

সরকারের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের সূত্রে জানা যায়, কমিশন গঠনের প্রক্রিয়া, এই কমিশনে কোন পর্যায়ের ব্যক্তিদের রাখা হবে, এসব বিষয়ে নীতিনির্ধারণী পর্যায়ে চিন্তা-ভাবনা ও আলোচনা চলছে। কমিশন গঠনের ব্যাপারে সংশ্লিষ্টরা দ্রুতই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কথা বলবেন। এই কমিশন গঠনের প্রক্রিয়া ও কমিশনের কাজের ধরন কি হবে সেসব বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে সরকার আলোচনা করবে এবং তাদের মতামত নেবে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক আরও বলেন, এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বিস্তারিত আলোচনা হবে। কীভাবে কমিশন গঠন করা হবে, এর কার্যপরিধি এবং ক্ষমতা কী হবে, টার্মস অব রেফারেন্স কী হবে- এসব বিষয় বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আমরা শিগগিরই আলোচনা করে ঠিক করব।

বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যার পর ইনডেমিনিটি অধ্যাদেশের মাধ্যমে বিচার বন্ধ করে দেওয়া হয়। ২১ বছর পর ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার কার্যক্রম শুরু করে। ২০১০ সালে কয়েকজনের ফাঁসির রায় কার্যকর হয়।

বঙ্গবন্ধু হত্যার যে বিচারে যাদের শাস্তি হয়েছে, তারা মূলত আত্মস্বীকৃত খুনী। কিন্তু এ ঘটনার ষড়যন্ত্রকারীদের বিষয়ে তদন্ত কিংবা বিচার হয়নি। এই ঘটনার সঠিক তদন্ত ও বিচার জরুরি বলে মনে করে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ।

বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারা বলছেন, সামরিক বাহিনীর কিছু অফিসার ও সৈনিকই শুধু এই ন্যক্কারজনক ও দুঃসাহসিক হত্যাকাণ্ড ঘটায়নি, এর পেছনে অনেক বড় জাতীয় ও আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্র কাজ করেছে।

এ বিষয়ে নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, এটা একটা হত্যাকাণ্ড। বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার হয়েছে কিন্তু হত্যাকাণ্ডের ষড়যন্ত্রের বিচার হয়নি। কেন হত্যা করা হলো, এর পেছনে কারা ষড়যন্ত্র করেছিল। জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে ষড়যন্ত্র ছিল। এটা বের করা দরকার। এটা এদেশের মানুষের দাবি। এজন্য তদন্ত কমিশন গঠন করা জরুরি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *