করোনার অবাক উপসর্গ

করোনাভাইরাস শরীরে রক্ত জমাট বাঁধিয়ে রোগীকে গুরুতর অসুস্থ করতে পারে। একটি গবেষণায় দেখা গেছে, প্রায় ৩০ শতাংশ গুরুতর করোনা আক্রান্ত রোগীর এই সমস্যা ছিলো, যা তাদের মৃত্যুর অন্যতম কারণ। ভাইরাসটি বেশিরভাগ ক্ষেত্রে রোগীর হৃৎপিণ্ড, মস্তিষ্ক এবং ফুসফুসের রক্তনালীতে রক্ত জমাট বাঁধায়।

এবার জানা গেল, পুরুষাঙ্গে রক্ত জমাট বাঁধার কারণে করোনায় আক্রান্ত এক রোগীকে দীর্ঘ ৪ ঘণ্টা প্রিয়াপ্রিজম-এর অসহনীয় যন্ত্রণায় ভুগতে হয়েছে। মিরর অনলাইনের খবরে প্রকাশ, ফ্রান্সের একটি হাসপাতালে সম্প্রতি করোনা সংক্রমণে ৬২ বছর বয়সি এক করোনা রোগীর প্রিয়াপিজম সমস্যা দেখা দেয়। লিঙ্গে রক্ত পরিবহন প্রতিবন্ধকতার কারণে যদি দীর্ঘ সময়ের জন্যে লিঙ্গ উত্থিত থাকে তাকে প্রিয়াপিজম বলে। এ অবস্থাটি অত্যন্ত যন্ত্রণাদায়ক।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণে রোগীর পুরুষাঙ্গে রক্ত জমাট বাঁধার ঘটনা বিশ্বে এটিই প্রথম। ওই রোগীর নাম প্রকাশ করা হয়নি। করোনার সাধারণ লক্ষণগুলো (জ্বর, শুষ্ক কাশি এবং শ্বাসকষ্ট) নিয়ে ওই রোগী দুই সপ্তাহ ধরে দেশটির লে চেসনেতে অবস্থিত ‘সেন্টার হসপিটাল ডে ভার্সাইলস’ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। অবস্থার অবনতি ঘটলে তাকে আইসিইউতে নেওয়া হয়।
চিকিৎসকরা লক্ষ্য করেছেন, রক্ত জমাট বাঁধার কারণে ওই রোগীর লিঙ্গের টিস্যু শক্ত হয়ে গিয়েছে। আশার কথা হচ্ছে, চিকিৎসকরা সফলভাবে জমাট রক্ত সরিয়ে ফেলতে সক্ষম হয়েছেন। এবং তারা নিশ্চিত করোনাভাইরাসের সংক্রমণের কারণেই রোগীর প্রিয়াপিজম হয়েছে।

আমেরিকান জার্নাল অব ইমার্জেন্সি মেডিসিনে প্রকাশিত এই রোগীর কেস স্টাডিতে মরিয়াম লামাম্রির নেতৃত্বে গবেষকরা লিখেছেন: ‘রোগীর ক্লিনিক্যাল এবং ল্যাব উভয় পরীক্ষার ফল করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সঙ্গে প্রিয়াপিজমের সম্পর্ক থাকার দৃঢ় প্রমাণ দেয়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *